খাবারের নাম প্যাগপ্যাগ

নতুন একটা খাবারের সাথে পরিচয় করিয়ে দেই।

খাবারের নাম প্যাগপ্যাগ। ফিলিপিনো শব্দ, যার অর্থ ইংরেজিতে হয় ‘Shake Off’। উপকরণ প্রধাণত মুরগী, গরু বা শুকরের মাংস। প্যাগপ্যাগ রান্না করে খাওয়া যায় আবার ইন্সট্যান্টও খাওয়া যায় – তবে রান্না করা অবস্থায় গ্রহনযোগ্যতা বেশী। প্যাগপ্যাগের উপকরণ সংগ্রহ করে ভালো করে ধোয়া হয়, তারপর কুচি কুচি করে কাটা হয়। তারপর টুকরোগুলোকে ডুবানো গরম তেলে ভেজে নিলেই তৈরী হয়ে গেল প্যাগপ্যাগ। প্রধান উপকরণ মাংস হলেও এর দাম তুলনামূলকভাবে বেশ সস্তা। এর প্রধাণ কারণ হল প্যাগপ্যাগের উপকরণ সংগ্রহ করা হয় বিনামূল্যে। সাধারণত ফাস্টফুড রেস্টুরেন্টগুলোর ডাস্টবিন থেকে খদ্দেরদের ফেলে দেয়া উচ্ছিষ্ট অংশ সংগ্রহ করে প্রক্রিয়াজাত করে তৈরী হয় প্যাগপ্যাগ। বলা বাহুল্য, প্যাগপ্যাগের প্রধান খদ্দের এক্সট্রিম পোভার্টিতে থাকা মানুষজন। 

প্যাগপ্যাগ বাংলাদেশের খাবার নয় – সেজন্য স্রষ্টাকে ধন্যবাদ দেয়া যেতে পারে। তবে প্যাগপ্যাগ না থাকলেও সেরকম কোন খাবার কি বাংলাদেশে বিক্রি হয় না? রেস্টুরেন্টগুলো, বিশেষ করে বুফে রেস্টুরেন্টগুলোর ডাস্টবিন থেকে কি উচ্ছিষ্ট সংগ্রহ করে না কেউ?

ঈদের খাবার সহ সকল খাবার গ্রহণের সময় ‘প্যাগপ্যাগ’র কখা মনে রাখুন – খাবার অপচয় বন্ধ করুন। ঈদ মোবারক।

About দারাশিকো

নাজমুল হাসান দারাশিকো। প্রতিষ্ঠাতা ও কোঅর্ডিনেটর, বাংলা মুভি ডেটাবেজ (বিএমডিবি)। যোগাযোগ - [email protected]

View all posts by দারাশিকো →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *